|

দেশের গণতন্ত্র ফেরত চাইলেন মিয়ানমারের সুন্দরী

Published: Thu, 01 Apr 2021 | Updated: Thu, 01 Apr 2021

অভিযাত্রা ডেস্ক : থাইল্যান্ডে অনুষ্ঠিত হয়ে গেল সুন্দরী প্রতিযোগিতার আসর ‘মিস গ্র্যান্ড ইন্টারন্যাশনাল’। সেখানে অংশ নেয়া মিয়ানমারের সুন্দরী হান তার বক্তব্যে দেশের জন্য গণতন্ত্র দাবি করলেন। এজন্য তিনি আন্তর্জাতিক সাহায্যও কামনা করেছেন। ব্যাংককে গত ২৭ মার্চ এ প্রতিযোগিতার সমাপনী অনুষ্ঠান হয়। 

সেদিন মিয়ানমারজুড়ে নিরাপত্তা বাহিনীর দমন-পীড়নে মারা গেছেন ১১৪ জন বিক্ষোভকারী। গত ১ ফেব্রæয়ারি সামরিক অভ্যুত্থানের পর থেকে চলমান আন্দোলনে একদিনে নিহতের সর্বোচ্চ সংখ্যা। দেশটিতে গণতন্ত্রের জন্য আন্দোলন করছেন মুক্তিকামী মানুষেরা। 

সেই আন্দোলনে সমর্থন দিয়ে দেশের জন্য গণতন্ত্র চাইলেন মিস গ্র্যান্ড মিয়ানমার নির্বাচিত হওয়া হান লেই। তিনি সমাপনী অনুষ্ঠানে স্পটলাইটের নিচে কথা বলার সুযোগ পান।

ছোট্ট সে মুহূর্তটি তিনি ব্যবহার করলেন নিজের দেশের গণতন্ত্র পুনরুদ্ধারের দাবিতে। ইয়াঙ্গন ইউনিভার্সিটির ছাত্রী হান তার বক্তব্যের শুরুতেই গণতন্ত্রের জন্য মিয়ানমারের রাজপথে প্রাণ দেওয়া আন্দোলনকারীদের শ্রদ্ধা জানান। 

তিনি বলেন, ‘আমার দেশের মানুষ গণতন্ত্র চায়। তারা গণতন্ত্রের জন্য জীবন দিচ্ছে। আমি সারা বিশ্বের সামনে তাদের সেই নায্য দাবিকে তুলে ধরতে চাই এই প্রতিযোগিতার এই মঞ্চ থেকে।’ 

প্রতিযোগিতার চূড়ান্ত পর্বে নিজের দেশের পরিস্থিতির বিবরণ দিতে গিয়ে চোখের জল ফেলেন এই তরুণী। গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠায় বিশ্ববাসীকে তিনি মিয়ানমারের পাশে থাকার আহ্বানও জানান। 

প্রসঙ্গত, মিয়ানমারের সেনাবাহিনী গত ১ ফেব্রুয়ারি সে দেশের নির্বাচিত সরকারকে উৎখাত করে জরুরি অবস্থা জারি করে। এরপর থেকে গণতন্ত্রের দাবিতে বিক্ষোভ করছে দেশটির জনগণ। সেই বিক্ষোভের মুখে নিরাপত্তা বাহিনীর হাতে প্রাণ দিয়েছেন অনেকেই। 

ওয়াচডগ গ্রুপ অ্যাসিস্টেন্স অ্যাসোসিয়েশন ফর পলিটিক্যাল প্রিজনারের (এএপিপি) বরাত দিয়ে বিবিসি এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে, জান্তা সরকারবিরোধী বিক্ষোভে সেনাদের গুলিতে এখন পর্যন্ত দেশটিতে নিহত হয়েছেন ২৬১ জন। যার মধ্যে অন্তত ২০ জন শিশু বলে জানিয়েছে সেভ দ্য চিলড্রেন। যদিও জান্তা সরকার বলছে, নিহতের সংখ্যা ১৬৪।

আইআর /