|

অষ্টগ্রামে বিএডিসির গুদামটি এখন মাদকের আখড়া

Published: Wed, 22 Sep 2021 | Updated: Wed, 22 Sep 2021

বিজয় কর রতন, মিঠামইন, কিশোরগঞ্জ প্রতিনিধি: কিশোরগঞ্জের হাওর উপজেলা অষ্টগ্রামের বিএডিসির গুদামটি এখন বেপরোয়া মাদকসেবি ও সমাজ বিরোধীদের আখড়ায় পরিণত হয়েছে। এ ব্যাপারে বাংলাদেশ কৃষি উন্নয়ন করপোরেশন (বিএডিসি সার) এর কোন খোঁজ খবর নেই বলে অভিযোগ উঠেছে। 

জেলা বিএডিসি (সার) অফিস সূত্রে জানা গেছে, অষ্টগ্রাম উপজেলার দেওঘর ইউনিয়নের সাভিয়ানগর বাজারে অবস্থিত বিএডিসির ২০০ মে. টন ধারণ ক্ষমতার ২৯ শতাংশ জায়গার উপরে নির্মিত সারের গুদামটি। এলাকাবাসীরা জানায়,  যুগের পর যুগ ধরে পাকা ও সেমিপাকা ভবনে দীর্ঘ দিন যেমন নেই কোন বিএডিসির সার এর কার্যক্রম, তেমনি নেই দায়িত্বে থাকা কোন কর্মকর্তার দেখা। ফলে বর্তমানে গুদাম ও অফিস ঘরটি ভৌতিক বাসস্থানে পরিণত হয়েছে ।

এলাকার একাধিক ব্যক্তি জানান, সন্ধ্যার পর থেকেই গভীর রাত পর্যন্ত এই বিএডিসির সার ভবনে চলে গাঁজা, চোলাই মদ সহ নানা  মাদক ও জুয়ারিদের আড্ডা। এই ভবনে বসেই চলে মাদক বেচাকেনা, ফলে এই বিএডিসির পরিত্যক্ত গুদামটিতে বিভিন্ন জায়গা থেকে এসে বিভিন্ন রকম অসামাজিক কার্যক্রম করে। ফলে ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে এলাকাবাসীরা। কিন্তু এই গুদামটির দায়িত্বে থাকাদেরকে চোখেও দেখা যায় না এবং দায়ি়ত্বে থাকা কর্মকর্তাদের অবহেলার কারণেই দিনেদিনে আরো চরম আকার দেখা দিচ্ছে বলে এলাকাবাসীরা জানান।  

এ বিষয়ে কিশোরগঞ্জের বিএডিসি (সার) অতিরিক্ত দায়িত্বে থাকা যুগ্ম পরিচালক ফিরোজ আহাম্মেদ মোবাইল ফোনে জানান, দীর্ঘদিন যাবত এই ভবনটি রক্ষণাবেক্ষণের লোকবল না থাকায় এমনটি হয়েছে, তবে বিষয়টির নিয়ে সার ব্যবস্থাপনা কমিটির সিদ্ধান্তের মাধ্যমে ভবনটি ভাঙ্গা হবে। 

এই ব্যাপারে বাংলাদেশ কৃষি উন্নয়ন করপোরেশন সদস্য পরিচালক (সার ব্যবস্থাপনা) ড. এ কে এম মুনিরুল হক মুঠোফোনে জানান, বিষয়টি কিশোরগঞ্জের  বিএডিসি (সার) যুগ্ম পরিচালককে বলে দিচ্ছি, বিষয়টি দেখে যেন রিপোর্ট দেন। তারপর ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

 

ডব্লিউইউ