|

২ লাখ সাবস্ক্রাইবার হারিয়েছে নেটফ্লিক্স 

Published: Wed, 20 Apr 2022 | Updated: Wed, 20 Apr 2022

ওটিটি প্ল্যাটফর্মগুলোর মধ্যে নেটফ্লিক্স এখন সবচেয়ে জনপ্রিয়। সিনেমা ও টেলিভিশন ধারাবাহিক এবং ওটিটি সিরিজ দেখার জন্য সেরা এই প্ল্যাটফর্মটির গ্রাহক আছে সারাবিশ্বে। সেই সংখ্যা কয়েক কোটি ছাড়িয়েছে বহু আগেই।

তবে এবার হুড়মুড়িয়ে কমলো নেটফ্লিক্সের শেয়ার দর। মাত্র ১০০ দিনে ২ লাখ সাবস্ক্রাইবার হারিয়েছে প্ল্যাটফর্মটি। গত এক দশকে এই প্রথম বার এমনটা ঘটল।

চলতি অর্থবর্ষের প্রথম ত্রৈমাসিকেই এ ওটিটি প্ল্যাটফর্মের শেয়ারের দাম ২৫ শতাংশ কমে দাঁড়িয়েছে ২৬২ ডলারে। যা ভারতীয় মুদ্রায় ২০ হাজার টাকার কিছু বেশি। নেটফ্লিক্সের এমন ক্ষতির মুখে পড়ার কারণ জানিয়ে সংস্থাটি। মোট পাঁচটি কারণ তুলে ধরেছেন তারা। চলুন জেনে নেওয়া যাক সেগুলো-

করোনা :

২০২০ সালে করোনা সংক্রমণ শুরু হওয়ার পর নেটফ্লিক্স ব্যবহারকারীর সংখ্যা বেড়েছিল অনেকটাই। তবে তাতে আশা জাগলেও পরে ২০২১ সালে যখন করোনা সংক্রমণ কমল না তখন দেখা গেল না আশানুরূপ সংখ্যায় ব্যবহারকারী আসছেন না নেটফ্লিক্সে।

ব্যবহারকারী

বছরের প্রথম ত্রৈমাসিকে অর্থাৎ ১০০ দিনেরও কম সময়ে নেটফ্লিক্স ব্যবহারকারীর সংখ্যা অনেক কমেছে। প্রথম ত্রৈমাসিকে নেটফ্লিক্সের গ্রাহক সংখ্যা ছিল ২২ কোটি ১৬ লাখ। যা গত অর্থবর্ষের প্রথম ত্রৈমাসিকের থেকে বেশ কম।

অ্যাকাউন্ট ভাগ করে নেওয়া:

ব্যবহারকারীর সংখ্যা কমে যাওয়ার আরেকটি অন্যতম কারণ হিসেবে তারা বলছেন অ্যাকাউন্ট ভাগ করে নেওয়াকেই। নেটফ্লিক্সের পক্ষ থেকেই এই সুবিধা দেওয়া হয়। তবে এই সুবিধার কারণে গ্রাহকের সংখ্যা গত এক বছরে সেভাবে বাড়েনি বলেই দাবি প্ল্যাটফর্মটির।

রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধ:

নেটফ্লিক্সের দাবি, তাদের ব্যবসায় প্রভাব ফেলেছে রাশিয়া-ইউক্রেনের যুদ্ধ। ইউক্রেনে রাশিয়ার হামলার প্রতিবাদে নেটফ্লিক্স তাদের সম্প্রচার বন্ধ করেছে রাশিয়ায়। এখন নেটফ্লিক্স জানাচ্ছে, সেই সিদ্ধান্তে ক্ষতির মুখে পড়তে হয়েছে সংস্থাটিকে।

ইন্টারনেট

তবে শুধু যুদ্ধ নয়, অনেকক্ষেত্রেই ইন্টারনেট সমস্যা একটা বড় কারণ হয়ে দাঁড়াচ্ছে নেটফ্লিক্সের। গ্রাহক সংখ্যা কমে যাওয়ার এটাও একটা কারণ বলে মনে করছে তারা। এখন ইন্টারনেটের সাহায্যে টিভিতেই দেখা যায় নেটফ্লিক্স। তবে স্মার্টটিভি আর যথাযথ ইন্টারনেট সংযোগের অভাবে ব্যবহারকারীদের পরিষেবা দেওয়া যাচ্ছে না বলে নেটফ্লিক্সের দাবি।

সূত্র: এনডিটিভি

আইআর /