|

বিপিএলে সাত দলের স্কোয়াড চূড়ান্ত

Published: Wed, 23 Nov 2022 | Updated: Wed, 23 Nov 2022

অভিযাত্রা ডেস্ক: ২০২৩ সালের বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের (বিপিএল) জন্য স্কোয়াড চূড়ান্ত করেছে সাত ফ্র্যাঞ্চাইজি। বুধবার (২৩ নভেম্বর) রাজধানীর একটি অভিজাত পাঁচ তারকা হোটেলে প্লেয়ার ড্রাফট থেকে বেছে নেয় পছন্দমতো ক্রিকেটারদের। এর আগে তারা একজন করে খেলোয়াড়কে (আইকন) সরাসরি চুক্তিবদ্ধ করে।

ড্রাফটের জন্য সোমবার (২১ নভেম্বর) দেশি খেলোয়াড়দের তালিকা প্রকাশ করেছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)। এতে ৭টি ক্যাটাগরিতে ২১৭ জনের নাম ছিল।

এক নজরে ৭ দলের স্কোয়াড

কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স সরাসরি চুক্তিতে দলভুক্ত করেছে মোস্তাফিজুর রহমান, শাহিন শাহ আফ্রিদি (পাকিস্তান), মোহাম্মদ রিজওয়ান (পাকিস্তান), হাসান আলি (পাকিস্তান), খুশদিল শাহ (পাকিস্তান), মোহাম্মদ নবি (আফগানিস্তান), আবরার আহমেদ (পাকিস্তান), জশ কেবি (ইংল্যান্ড), ব্রেন্ডন কিং (ওয়েস্ট ইন্ডিজ)। এ ছাড়া ড্রাফট থেকে নিয়েছে লিটন দাস, মোসাদ্দেক হোসেন, তানভীর ইসলাম, ইমরুল কায়েস, আশিকুর জামান, জাকের আলি অনিক, শন উইলিয়ামস (জিম্বাবুয়ে), চ্যাডউইক ওয়ালটন (ওয়েস্ট ইন্ডিজ), সৈকত আলি, আবু হায়দার রনি, নাঈম হাসান, মুকিদুল ইসলাম মুগ্ধ, মাহিদুল ইসলাম অঙ্কন, দেলোয়ার হোসেনকে।

ঢাকা ডমিনেটরস সরাসরি চুক্তি করেছে তাসকিন আহমেদ, চামিকা করুনারাত্নে (শ্রীলঙ্কা), দিলশান মুনাবিরার (শ্রীলঙ্কা) সঙ্গে। ড্রাফট থেকে দলে নেওয়া হয় মোহাম্মদ মিঠুন, সৌম্য সরকার, শরিফুল ইসলাম, আরাফাত সানি, নাসির হোসেন, আল আমিন হোসেন, শান মাসুদ (পাকিস্তান), আহমেদ শেহজাদ (পাকিস্তান), অলক কাপালি, মনির হোসেন খান, আরিফুল হক, মুক্তার আলি, মিজানুর রহমান, উসমান গণি (আফগানিস্তান), সালমান ইরশাদকে (পাকিস্তান)।

সরাসরি চুক্তিতে চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্স নিয়েছে আফিফ হোসেন, বিশ্ব ফার্নান্দো (শ্রীলঙ্কা), কার্টিস ক্যাম্ফার (আয়ারল্যান্ড), আশান প্রিয়াঞ্জনকে (শ্রীলঙ্কা)। ড্রাফট থেকে নেয় মৃত্যুঞ্জয় চৌধুরী, শুভাগত হোম, মেহেদি হাসান রানা, ইরফান শুক্কুর, মেহেদি হাসান মারুফ, জিয়াউর রহমান, ম্যাক্স ও'দাউদ (নেদারল্যান্ডস), উন্মুখ চাঁদ (ভারত/যুক্তরাষ্ট্র), তাইজুল ইসলাম, আবু জায়েদ রাহী, ফরহাদ রেজা, তৌফিক খান তুষারকে।

ফরচুন বরিশালের সঙ্গে সরাসরি চুক্তিবদ্ধ হয়েছেন সাকিব আল হাসান, রাহকিম কর্নওয়াল (ওয়েস্ট ইন্ডিজ), মোহাম্মদ ওয়াসিম (পাকিস্তান), ক্রিস গেইল (ওয়েস্ট ইন্ডিজ), ইব্রাহিম জাদরান (আফগানিস্তান), ইফতেখার আহমেদ (পাকিস্তান), নাভিন উল হক (আফগানিস্তান), উসমান কাদির (পাকিস্তান), কুশল পেরেরা (শ্রীলঙ্কা), রহমানউল্লাহ গুরবাজ (আফগানিস্তান), করিম জানাত (আফগানিস্তান)। ড্রাফট থেকে দলে গেছেন মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ, মেহেদী হাসান মিরাজ, ইবাদত হোসেন, এনামুল হক বিজয়, কামরুল ইসলাম রাব্বি, ফজলে মাহমুদ রাব্বি, হায়দার আলি (পাকিস্তান), চতুরাঙ্গা ডি সিলভা (শ্রীলঙ্কা), সৈয়দ খালেদ আহমেদ, সাইফ হাসান, কাজী অনিক, সানজামুল ইসলাম, সালমান হোসেন ইমন।

আরও পড়ুন: বিপিএল: ড্রাফটে ৭ ক্যাটাগরিতে ২১৭ খেলোয়াড়

খুলনা টাইগার্সের সরাসরি চুক্তিবদ্ধ খেলোয়াড়রা হলেন তামিম ইকবাল, আজম খান (পাকিস্তান), ওয়াহাব রিয়াজ (পাকিস্তান), আভিশকা ফার্নান্দো (শ্রীলঙ্কা), নাসিম শাহ (পাকিস্তান)। ড্রাফট থেকে এ দলে গেছেন মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন, ইয়াসির আলি চৌধুরী, নাসুম আহমেদ, নাহিদুল ইসলাম, মুনিম শাহরিয়ার, সাব্বির রহমান, দাসুন শানাকা (শ্রীলঙ্কা), পল ফন মেকেরিন (নেদারল্যান্ডস), শফিকুল ইসলাম, প্রীতম কুমার, হাবিবুর রহমান সোহান, মাহমুদুল হাসান জয়।

রংপুর রাইডার্সে সরাসরি চুক্তিবদ্ধ হয়েছেন নুরুল হাসান সোহান, সিকান্দার রাজা (জিম্বাবুয়ে), হারিফ রউফ (পাকিস্তান), মোহাম্মদ নাওয়াজ (পাকিস্তান), শোয়েব মালিক (পাকিস্তান), পাথুম নিশাঙ্কা (শ্রীলঙ্কা), জেফ্রি ভ্যান্ডারসাই (শ্রীলঙ্কা)। ড্রাফট থেকে এ দলভুক্ত হয়েছেন শেখ মেহেদি হাসান, হাসান মাহমুদ, মোহাম্মদ নাঈম শেখ, রাকিবুল হাসান, শামীম হোসেন, রিপন মণ্ডল, আজমতউল্লাহ ওমরজাই (আফগানিস্তান), অ্যারন জোনস (যুক্তরাষ্ট্র), রনি তালুকদার, পারভেজ হোসেন ইমন, রবিউল হক, আলাউদ্দিন বাবু।

সিলেট স্ট্রাইকার্সের সরাসরি চুক্তি হয়েছে মাশরাফি বিন মুর্তজা, মোহাম্মদ আমির (পাকিস্তান), মোহাম্মদ হারিস (পাকিস্তান), থিসারা পেরেরা (শ্রীলঙ্কা), ধনাঞ্জয়া ডি সিলভা (শ্রীলঙ্কা), রায়ান বার্ল (জিম্বাবুয়ে), কামিন্দু মেন্ডিস (শ্রীলঙ্কা), কলিন অ্যাকারম্যানের (নেদারল্যান্ডস) সঙ্গে। ড্রাফট থেকে দলটি নিয়েছে মুশফিকুর রহিম, নাজমুল হোসেন শান্ত, রেজাউর রহমান রাজা, নাবিল সামাদ, তৌহিদ হৃদয়, রুবেল হোসেন, টম মুরস (ইংল্যান্ড), গুলবাদিন নাইব (আফগানিস্তান), জাকির হাসান, নাজমুল ইসলাম অপু, আকবর আলি, মোহাম্মদ শরিফউল্লাহ, তানজিম হাসান সাকিবকে।

ও/এসএ/