|

ঝড়ো হাওয়ার সুন্দরগঞ্জের ৫ হাজার হেক্টর জমির ফসলের ক্ষতি

Published: Sat, 24 Oct 2020 | Updated: Sat, 24 Oct 2020

এ মান্নান আকন্দ, সুন্দরগঞ্জ (গাইবান্ধা) : ঝড়ো হাওয়ায় আমন ও সবজি ক্ষেতের ব্যাপক ক্ষতির সম্ভাবনা দেখা দিয়েছে। গত শুক্রবার (২৩ অক্টোবর) হতে হঠাৎ করে গাইবান্ধার সুন্দরগঞ্জ উপজেলার উপর দিয়ে ঝড় হাওয়া প্রবাহিত হচ্ছে। সে কারণে আধাপাকা, থোরধানসহ আমন ক্ষেত মাটিতে হেলে পড়েছে। নিচু এলাকার ধানক্ষেত পানিতে ডুবে গেছে।

এছাড়া বিভিন্ন সবজি ক্ষেত দারুণভাবে ক্ষতিগ্রস্থ হয়ে পড়েছে। অব্যাহত ঝড় হাওয়ায় ইতিমধ্যে উপজেলার ১৫টি ইউনিয়ন ও একটি পৌরসভার বেশিভাগ আমন ক্ষেতের ফসল মাটিতে হেলে পড়েছে।

উপজেলা কৃষি অফিস সূত্রে জানা গেছে, প্রাথমিকভাবে ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ নির্ধারণ করা হয়েছে প্রায় ৪ হাজার ৮০০ হেক্টর। এর মধ্যে আমন ৪ হাজার ৩০০ হেক্টর এবং সবজি ক্ষেত ৫০০ হেক্টর।

উপজেলার শান্তিরাম ইউনিয়নের কৃষক তারা মিয়া জানান, তার ৫ বিঘা জমির আমন ক্ষেতের মধ্যে ৩ বিঘা জমির ফসল ঝড় হাওয়ায় মাটিতে হেলে পড়েছে। এভাবে ঝড় হাওয়া চলতে থাকলে হেলেপড়া ধান ক্ষেত সম্পূর্ণরূপে নষ্ট হয়ে যাবে। তিনি বলেন. এতে তার ৪০ হাজার টাকা লোকসান হবে।

কাপাসিয়া ইউনিয়নের সবজি চাষী আলতাব মিয়া জানান, তার এক বিঘা জমির বেগুন গাছ মাটিতে হেলে পড়েছে। এছাড়া একবিঘা জমির লাল ও পালং শাক ঝড় হাওয়ায়  মাটিতে মিশে গেছে। এতে তার ৩০ হাজার টাকার মত লোকসান হয়েছে।

ক্ষয়ক্ষতিতে মাথায় হাত দিয়ে বসেছেন কৃষক সমাজ। এদিকে প্রবাহমান ঝড় হাওয়ায় স্বাভাবিক জীবন যাত্রা ব্যহত হয়ে পড়েছে। বিশেষ করে হিন্দু সম্প্রদায়ের শারদীয় দুর্গোৎসব নিয়ে বিপাকে পড়েছে পূজারিরা।

উপজেলা কৃষি অফিসার কৃষিবিদ সৈয়দ রেজা-ই মাহমুদ জানান, ঝড়ো হাওয়ায় আমন ক্ষেতের প্রাথমিক ক্ষতির পরিমান নির্ধারণ করা হয়েছে প্রায় ৪ হাজার ৩০০ হেক্টর। তবে সবজি ক্ষেতের পরিমাণ নির্ধারণ করা সম্ভব হয়নি।

তিনি বলেন, অসময়ে ঝড় হাওয়ার কারনে উঠতি আমনক্ষেতসহ অন্যান্য ফসলের ক্ষতির সম্ভবনা রয়েছে।

ও/এসএ/