|

‘সব মায়ের দোষ’ লিখে স্বামীকে নিয়ে তরুণীর আত্মহত্যা

Published: Thu, 24 Nov 2022 | Updated: Thu, 24 Nov 2022

অভিযাত্রা ডেস্ক: ঝিনাইদহ সদরে এক নবদম্পতির ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। বৃহস্পতিবার (২৪ নভেম্বর) সকালে উপজেলার কালীচরণপুর ইউনিয়নের হাটবাকুয়া গ্রামে মাঠের একটি গাছ থেকে তাঁদের মরদেহ উদ্ধার করা হয়।

মৃতরা হলেন তালতলা হরিপুর গ্রামের চুনু শেখের ছেলে রমজান হোসেন রুজিব (২০) ও তাঁর স্ত্রী হরিনাকুন্ডু উপজেলার বিন্নি গ্রামের গোলাম হোসেনের মেয়ে মুক্তা খাতুন (১৮)। মুক্তার বাম হাতে মেহেদি দিয়ে লেখা রয়েছে, ‘সব আমার মায়ের দোষ, আমরা চলে যাচ্ছি।’

রুজিব জেলা শহরের হামদহ এলাকার একটি মটর গ্যারেজে কাজ করতেন।  স্থানীয় সূত্র জানায়, প্রেমের সম্পর্ক থেকে দুই মাস আগে রুজিব ও মুক্তা বিয়ে করেন। তবে দুই পরিবারের কেউ তা মেনে নেননি। এ নিয়ে দ্বন্দ্ব চলে আসছিল।

পরিবারের বরাতে পুলিশ জানায়, বৃহস্পতিবার সকালে মুক্তা খাতুনের বাবার বাড়িতে নেওয়ার জন্য লোকজন আসার কথা ছিলো। এর আগেই  রমজান ও মুক্তা রাত ২টার দিকে বাড়ি থেকে বের হয়ে যান। সকালে তাঁদের ঝুলন্ত লাশ মেলে গাছে।

নারিকেল বাড়িয়া পুলিশ ক্যাম্পের ইনচার্জ বিল্লাল হোসেন জানান, পারিবারিক কলহের জেরে এ আত্মহত্যার ঘটনা বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করছেন তাঁরা। ময়নাতদন্তের জন্য দু’জনের মরদেহ মর্গে পাঠানো হয়েছে।

ও/এসএ/