দুই ম্যাচ হাতে রেখেই সিরিজ জিতলো যুবারা

নিউজিল্যান্ড অনূর্ধ্ব-১৯ দলের বিপক্ষে দাপুটে জয়ে দুই ম্যাচ হাতে রেখেই ওয়ানডে সিরিজ জিতলো বাংলাদেশ অনূর্ধ্ব-১৯ দল। এর আগে নিউজিল্যান্ডে ওয়ানডেতে বাংলাদেশ জাতীয় দলের তেমন কোনো সাফল্য ছিলো না। এবার সেখানে ব্যতিক্রম কিছু করে দেখালেন যুবারা। 

পাঁচ ম্যাচ ওয়ানডের তৃতীয়টিতে আজ লিঙ্কনের বার্ট সার্টক্লিফে মুখোমুখি হয় দু’দল। টস হেরে বাংলাদেশের আমন্ত্রণে আগে ব্যাট করে নিউজিল্যান্ড অনূর্ধ্ব-১৯ দল। ব্যাটিংয়ে নেমে লেলম্যানের সেঞ্চুরিতে ৮ উইকেটে ২২৩ রান করে কিউইরা। জবাবে ব্যাট করতে নেমে মাহমুদুল হাসান জয়ের সেঞ্চুরিতে মাত্র ২ উইকেট হারিয়ে লক্ষ্যে পৌঁছায় টাইগার যুবারা। এতে পাঁচ ম্যাচ সিরিজ ৩-০ ব্যবধানে নিজেদের করে নেয় আকবর আলীর দল।

রান তাড়া করতে নেমে আজ যেন দ্বিতীয় ওয়ানডের পুনরাবৃত্তি হয়েছে। ইনিংসের শুরুতেই ওপেনার অনিক সরকারকে হারালেও তানজিদ ও জয়ের ব্যাটে প্রতিরোধ গড়ে বাংলাদেশ। শেষদিকে হৃদয়ের সঙ্গে দৃঢ়তায় জয়ের বন্দরে পৌঁছে যায় যুবারা।

২২৪ রানের লক্ষে খেলতে নেমে দলীয় ১১ রানেই অনিক সরকারকে হারিয়ে ধাক্কা খায় বাংলাদেশ। সেই ধাক্কা কাটিয়ে বাংলাদেশকে টানতে থাকেন তানজিদ ও জয়। দ্বিতীয় উইকেট জুটিতে তাদের ৯০ রানের জুটি দলের জয়ের ভীত গড়ে দেয়। ফিফটির পর আক্রমণাত্মক খেলতে থাকা তানজিদকে ফেরান অশোক। ডিকসনের হাতে ধরা পড়ার আগে ৬৪ বলে ৬৫ রানের ইনিংস খেলেন তিনি।

১১১ রানে দ্বিতীয় উইকেট হারানোর পর তৌহিদ হৃদয়ের সঙ্গে জুটি গড়েন মাহমুদুল হাসান জয়। তাদের ১২৮ রানের জুটিতেই মূলত ৮ উইকেটে জয় পায় বাংলাদেশ। দলকে জেতানোর পথে ৯৫ বলে ১৬ চার ও ১ ছক্কায় ১০৩ রানের ইনিংস খেলে অপরাজিত ছিলেন মাহমুদুল হাসান জয়। তার সঙ্গে ৭৬ বলে ৫১ রানে অপরাজিত থেকে দলকে জিতিয়ে মাঠ ছাড়েন তৌহিদ হৃদয়।

এর আগে টস হেরে ব্যাট করতে নেমে নিউজিল্যান্ডের হয়ে সর্বোচ্চ ইনিংস খেলেন লিলম্যান। ১৩৩ বলে ১১৬ রানের ইনিংস খেলে অপরাজিত ছিলেন কিউই এ তারকা। তার সঙ্গে আর কেউ বড় কোনো ইনিংস খেলতে না পারায় ৮ উইকেটে ২২৩ রানে থামে কিউইদের ইনিংস।

-এমজে